“আমরা হিন্দু সংরক্ষা ও দুর্নীতির বিরুদ্ধে এক মজবুত জোট করতে চাইছি”

সবসংবাদ: মহারাষ্ট্রের বিজেপি-শিবসেনা জোটের আসন ভাগাভাগির পর শিবসেনা নেতা সঞ্জয় রাউত বলেন “মহারাষ্ট্রে আমরাই দাদা, আমরাই দাদা ছিলাম, আমরাই দাদা থাকব”। আজ মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী দেবেন্দ্র ফড়নবিশ এই দাবির পাল্টা দিয়েছেন, “তিনি বলেন মহারাষ্ট্রে আমরা চায় সেনার সাথে জোট হোক, কিন্তু এমন নয় যে জোট না হলে আমরা হতাশ হয়ে পড়ব। বিজেপি অসহায় নয়, দেশের উন্নয়নের জন্য আমরা জোট করতে চাইছি”, আমরা চাই না যে কেন্দ্রের ক্ষমতা আরো একবার তাদের কাছে যাক যারা লম্বা সময় ধরে দেশকে লুঠেছে। বিজেপিই এমন পার্টি যারা লড়াই করে ২টি আসন থেকে ২৮২ আসনে পৌঁছেছে।

আরও পড়ুন: তৃণমূলের চক্রান্ত ব্যর্থ করে কাঁথিতে অমিত শাহের সভা নিশ্চিত করছে বিজেপি

মুখ্যমন্ত্রী দেবেন্দ্র ফড়নবিশ আরো বলেন “আমরা হিন্দু সংরক্ষা ও দুর্নীতির বিরুদ্ধে এক মজবুত জোট করতে চাইছি”।

ত্রিশ বছর আগে প্রথম শিবসেনা ও বিজেপির জোট হয়। বাল ঠাকরে ও অটল বিহারি বাজপেয়ীর নেতৃত্বে জোট তৈরি হয়। আজ তারা কেউ এই দুনিয়াতে নেয়। তাদেরকে সম্মান দিয়ে জোট বহাল রাখার দাবি করেছিলেন অমিত শাহ। দীর্ঘদিন ধরে কিছু বিষয় নিয়ে শিবসেনার সাথে বিজেপির মনোমালিন্য তৈরি হয়েছিল। লোকসভা নির্বাচনের আগে শিবসেনা দাবি করে যে তারা মহারাষ্ট্রে সমান সমান আসনে লড়তে চান। গত লোকসভা নির্বাচনে বিজেপি ২৪ টি আসনে এবং শিবসেনা ২০ টি আসনে লড়াই করে বাকি ৪ টি আসন অন্য জোটসঙ্গীদের ছেড়ে দেওয়া হয়। এবারে নির্বাচনে ২২-২২ টি আসনে লড়াই করতে চেয়েছিলো শিবসেনা। সেই আবেদনকে বহাল রেখে জোটে সম্মতি দিয়েছে বিজেপি।

1999Shares