” রাহুল জন্মের পাগল”- এতো কথা বলা ঠিক নয়, তাতে বেশি ভুল হয়

বৃন্দাবন: জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদে চীন আবারও জৈশ-ই-মোহাম্মদের প্রধান মাসুদ আজহারকে আন্তর্জাতিক আতঙ্কবাদী ঘোষণাকরা থেকে বাঁচিয়েছে। গত দশ বছরে চীন ভোটাধিকারের ক্ষমতা দেখিয়ে চতুর্থবার বাঁচালো মাসুদকে। এই নিয়ে আজ রাহুল গান্ধী টুইট করেছেন যে, মোদি দুর্বল এবং তিনি চীনের রাষ্ট্রপতি জিয়া জিপিংয়ের ভয়ে ভীত। চীন যখন ভারতকে বিরোধিতা করেছিল, তখন মোদির মুখে কোন কথা ছিল না। এই বিজেপি জবাব দিয়েছে যে বৈদেশিক নীতি টুইটার থেকে চলে না।

আসলে গান্ধী পরিবারের এই চিরকুমার ব্রহ্মচারী অতি অল্প বুদ্ধিধারী রাহুল ওরফে পাপ্পু ওরফে রাহুলবাবা সোনিয়ার লাল জানে না, এতো কথা বলা ওর পক্ষে ঠিক নয়। বেশি কথা বললে যেমন বেশী ভুল হয়, কম কথা বললে কম ভুল হয়। কিন্তু একেবারে সব ভুল হলে লোকে পাগল বলবে। আর পাগল বলছে বুঝে ভুল বললে লোকে ” জন্মের পাগল বলবে।”

সাধারণত যে বিষয় নিয়ে রাহুল বলেছে, কিছু না কিছু ভুল বলেই ফেলেছে। সব ঠিক বলা একজনের পক্ষে সম্ভব নয়। কারণ মানুষ মাত্রেই ভুল হয়। কিন্তু এতো ভুল একমাত্র রাহুল গান্ধীর হয়, যে প্রধানমন্ত্রী হতে চাচ্ছেন। আর একজনের ভুল হয়, কিন্তু তিনি প্রধানমন্ত্রী হতে চাচ্ছেন কি না জানি না। তবে তিনি ১৯১১ সালে হাইকোর্টের সার্কিট বেঞ্চের উদ্বোধন করেছিলেন।

নরেন্দ্র মোদিকে রাহুল কোনোদিন স্মার্টলি আক্রমণ করতে পারে নি, জানি না কোনোদিন পারবে কি না। কিন্তু আজ মোদিকে আক্রমণ করতে গিয়ে দেশের বৈদেশিক নীতি যে টুইটারে হয় না তা স্মার্টের সাথে বুঝিয়ে দিলেন বিজেপি।

চীন সম্মন্ধে মোদী চুপ কেন? কেন মোদির মুখ থেকে কোনো কথা বেড়োলো না। রাহুলের এই প্রশ্নের উত্তর জিজ্ঞাসা করে রাহুল বুঝিয়ে দিলেন দেশের ক্ষমতা তার কাছে গেলে কিভাবে তিনি সব লেজে-গোবরে করে ফেলবেন।

সব সংবাদের খবর ভালো লাগলে Like করুন ‘ সব সংবাদ ‘ Facebook Page

567Shares